শনিবার, অক্টোবর ১, ২০২২
- বিজ্ঞাপন -

ফেসবুক কুপন বুস্ট এর বিস্তারিত

আসসালামু আলাইকুম, উড্ডয়নে আপনাকে স্বাগতম!
কেমন আছেন? আশা করি আল্লাহর রহমতে ভালোই আছেন।

শুরুতে একটি কথোপকথন শুনে নেই! তারপর বিস্তারিত।
গ্রাহকঃ ভাইয়া আমার অনেক লাইক / ফলোয়ার এর একটা পেজ পারমানেন্টলি রেস্ট্রিক্টেড হয়ে গেছে, কীভাবে ঠিক করতে পারি?
আমরাঃ যাকে দিয়ে আগে বুস্ট করাতেন সে কি কোন ফেক আইডিকে পেজের এক্সসেস দিতে বলত বুস্ট করার?
গ্রাহকঃ হ্যা ভাই।
আমরাঃ 🙁🙁🙁

উপরোক্ত এই ধরনের কমপ্লেইন আমরা প্রায়ই পেয়ে থাকি। অনেকের অনেক বড় বড় পেজ পারমানেন্টলি রেস্ট্রিক্টেড হয়ে যাচ্ছে সুধুমাত্র কুপন বুস্ট এর কারনে।
আজকের এই পোস্টে কুপন বুস্ট সম্পর্কে জানতে পারবেন, কীভাবে কুপন বুস্ট চিনবেন এবং কুপন বুস্ট কেন আপনার পেজের জন্য ক্ষতিকর সেটা ডিটেইলস বলার ট্রাই করব।

প্রথমেই আমরা জেনে নেই কুপন / Threshold বুস্ট কী?
আচ্ছা আমাদের যাদের ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ড আছে, আমরা জানি যে, আমাদের হাতে টাকা না থাকলেও ব্যাংক এর ক্রেডিট কার্ড দিয়ে একটা নির্দিষ্ট এমাউন্ট খরচ করা যায়, কিন্তু মাস শেষে সেই নির্দিষ্ট টাকা ঠিকই ব্যাংকে পেমেন্ট করতে হয়! রাইট?

ঠিক তেমনি কুপন / Threshold বুস্ট টাও এরকম। যেসব ফেক আইডি থেকে বুস্ট দেয়া হয় সেসব ফেক আইডিতে ফেসবুক কিছু কুপন দিয়ে থাকে, যাতে একাউন্টে ব্যালেন্স না থাকলেও বুস্ট চালু করতে পারে এবং মাস শেষে ব্যালেন্সটা ফেসবুককে-পে করতে পারে। কিন্তু আমাদের দেশে তো আর চিটার / বাটপারের অভাব নাই, এসব চিটাররা সেসব একাউন্ট থেকে আপনার পেজের বুস্ট করে ঠিকই কিন্তু মাস শেষে/নির্দিষ্ট সময় পরে ফেসবুককে সেই টাকাটা পেমেন্ট করে না। ফলে ফেসবুক সেই আইডি গুলোর এড রেস্টিক্টেড করে দেয়। আর এজন্যই দেখবেন আপনি যাকে দিয়ে এড রান করাচ্ছেন সে, আজকে Mr. X এর আইডি কে এক্সসেস দিতে বলবে কয়দিন পর বলবে Mr. Y কে এক্সসেস দিতে, এরপর Mr. A, B , C, এভাবে চলতেই থাকে। এক আইডি দিয়ে সে ২/৩ বারের বেশি বুস্ট করে দিতে পারবে না। আর এটাই হলো কুপন / Threshold বুস্ট.

কুপন বুস্ট কীভাবে চিনব?
আপনি যাকে দিয়েই বুস্ট করান-না কেন সে যদি কোন ফেক আইডিতে (বিশেষ করে; বিদেশি আইডি, উলটা-পালটা নাম) পেজের এক্সসেস দিতে বলে বুস্ট করে দেয়ার জন্য, তাহলেই বুঝে নিবেন এটা কুপন/Threshold বুস্ট এবং এই ধরণের এজেন্সি অথবা মার্কেটার থেকে কমপক্ষে ২০০ হাত দূরে থাকবেন।

কুপন বুস্ট কেন ক্ষতিকর?
ক্রেডিট কার্ডের উপরের উদাহরণটার কথা মনে আছে? ক্রেডিট কার্ডের বিল যদি আপনি ব্যাংকে পে না করেন; সেই ব্যংক কি আপনাকে আর তাদের কার্ড ইউজ করতে দিবে? অবশ্যই না। আর সাথে থাকছে আপনার জন্য আইনানুগ ব্যবস্থা ফ্রি!
ঠিক তেমনি করে আপনি যাকে দিয়ে আপনার পেইজ-এ বুস্ট করাচ্ছেন সে যদি ফেক আইডি অর্থাৎ কুপন / Threshold বুস্ট করে থাকে এবং মাস শেষে ফেসবুককে পেমেন্ট না করে তখন ফেসবুক কি তাকে আর বুস্ট করতে দিবে? অবশ্যই না। তখন ফেসবুক কি আইনানুগ ব্যবস্থা নিবে? ১০-৫০ ডলারের জন্য তারা বাংলাদেশে CID/FBI পাঠাবে? না। ফেসবুক তখন খুজবে সেই ফেক আইডি দিয়ে যেসব পেজে বুস্ট করা হয়েছে সেগুলোর আইডি ভেরিফিকেশন, আর তারপর পারমানেন্টলি সেসব পেজ থেকে এড রান করা ব্যান করে দিবে। আশা করি ক্লিয়ার হয়েছেন কেন কুপন / Threshold বুস্ট করবেন না।

কুপন / Threshold বুস্টের আরো অনেক ক্ষতিকর দিক আছে। 
যেমনঃ এড বার বার রিজেক্ট খাওয়া, এড এর পারফরম্যান্স বাজে হওয়া, এসব-ই কুপন বুস্টের পরিনতি।
আপনি বাংলাদেশি কোন এড ম্যানেজার থেকে যখন বুস্ট করবেন তখন ফেসবুকের এলগোরিদম আপনার আইপি এড্রেস ট্রেস করে বাংলাদেশের পটেনশিয়াল কাস্টমারকে এড দেখাবেন। কিন্তু আপনি যখন ফেক আইডি দিয়ে বুস্ট করাবেন, যেই ফেক আইডি USA / India / Thailand এসব দেশের, তখন ফেসবুকের এলগরিদমের কাছে জিনিসটা বেখাপ্পা লাগবে যে; এক দেশের এড আইডি কেন অন্য দেশের এড রান করছে। এরজন্য পারফরম্যান্স যেমন খারাপ হবে সেই সাথে এড রিজেক্ট খাবে বার বার। আর আপনার পেজ ব্যান খেয়ে আসমানে উঠে যাওয়ার চান্স তো ১০০% আছেই। 🙂

আজকে আর পোস্ট বড় করলাম না, আরো অনেক অনেক ঝামেলা আছে এইসব কুপন / Threshold বুস্টের। তাই যার কাছ থেকেই বুস্ট করান না কেন, রিয়েল বাংলাদেশি আইডিকে পেজের এক্সসেস দিতে না বলে যদি ফেক আইডি এক্সসেস দিতে বলে তাইলে সালাম দিয়ে তাকে ব্লক মারবেন। এতে করে আপনার টাকা এবং পেজ ২ টাই বাঁচবে।

নেক্সট কোন পোস্টে জানাবো যে; ফেক পেইজ / প্রোফাইল লাইক শেয়ার কেন কিনবেন না। সেই পর্যন্ত ভালো থাকুন আর এই পোস্টটা আপনার পরিচিত যারা ফেসবুক বিজনেস করে তাদেরকে জানিয়ে দিন।
আল্লাহ্‌ হাফেজ।

- বিজ্ঞাপন -
সম্পর্কিত পোস্টগুলো
- বিজ্ঞাপন -

জনপ্রিয় পোস্টগুলো

- বিজ্ঞাপন -